আজ বুধবার 10:45 pm05 August 2020    ২১ শ্রাবণ ১৪২৭    15 ذو الحجة 1441
For bangla
Total Bangla Logo

আওয়ামী লীগ একটি মিথ্যার কোম্পানি : রিজভী

এম. শফিকুল ইসলাম সজিব

টোটালবাংলা২৪.কম

প্রকাশিত : ০৯:২১ পিএম, ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ মঙ্গলবার | আপডেট: ১১:৪৩ এএম, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ সোমবার

নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচ তলায় পবিত্র আশুরা উপলক্ষ্ আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল

নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচ তলায় পবিত্র আশুরা উপলক্ষ্ আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল

বিএনপি`র সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব এ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী আহমেদ বলেছেন, আওয়ামীলীগ একটি মিথ্যার কোম্পানি। সেই কোম্পানির বিজ্ঞাপনী ম্যানেজার হলো ওবায়দুল কাদের ও সহকারী বিজ্ঞাপনী ম্যানেজার হচ্ছেন তাদের তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ চৌধুরী। এই মিথ্যা কোম্পানির চেয়ারম্যান স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী। তিনি কি যে বলেন আর না বলেন; আজকে এই দোয়া অনুষ্ঠানে সেটি আর কি বলব?

আজ দুপুরে ১২টায় নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের নিচ তলায় পবিত্র আশুরা উপলক্ষ্যে এক আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে এসব কথা বলেন। বিএনপি আয়োজিত এ অনুষ্ঠান পরিচলনা করে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ওলামা দল।

 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার  উদ্দেশ্যে রিজভী বলেন, প্রধানমন্ত্রী আপনি কিসের গর্ব করেন। আপনার প্রতিটি পদক্ষেপ হচ্ছে হিংসা বিদ্বেষ ছড়ানো আর কুৎসা রটানো। আপনি আজকে আওয়ামী লীগের সভানেত্রী, এটাতো জিয়াউর রহমানের দান। আপনি তো  এ পদে থাকতে পারতেন না যদি সেদিন রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান রাষ্ট্রপতির পদে থেকে আপনাকে সুযোগ করে না দিতেন। জিয়াউর রহমান অবৈধ রাষ্ট্রপতি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর এমন বক্তব্যের সমালোচনা করে রিজভী বলেন, প্রধানমন্ত্রী আপনার কাছে জিয়াউর রহমান অবৈধ রাষ্ট্রপতি হতে পারেন। কারণ ডাকাতরা যখন কারো বাড়িতে ডাকাতি করে তারা কি বলে আমরা অবৈধ কাজ করছি? কিন্তু যার বাড়ি ডাকাতি হয় সে বুঝতে পারে কি হয়েছে।

 

 

তিনি বলেন, দেশের মালিক জনগণ তারা বুঝতে পারছে। তাদের ভোটাধিকার, চলাচলের স্বাধীনতা সংবাদপত্রের স্বাধীনতা সেটা কি হরণ করেছে আওয়ামী লীগের এই ডাকাত সরকার?। তিনি (প্রধানমন্ত্রী) তো অস্বীকার করবেন কারণ তিনি নিজেই তো ডাকাতি করছে না। যারা গণতন্ত্রকে হত্যা করছেন তারা কি জিয়াউর রহমান সম্পর্কে ইতিবাচক কথা বলবেন? কারণ জিয়াউর রহমানকে স্বীকৃতি দিলে তারা যে হত্যাকারী এটিতে প্রতিষ্ঠিত হয়ে যায়।

বাকশাল ,সংবাদপত্র হরণ করেছিল কে? রাজনৈতিক দলগুলোকে কথা বলার স্বাধীনতা বন্ধ করে দিয়েছিল কে? সমস্ত কিছুর জন্য কে দায়ী? এমন প্রশ্নও রাখেন রিজভী।

 

 

জিয়াউর রহমানকে গণতন্ত্রের প্রতীক উল্লেখ্য করে রিজভী বলেন,  মত প্রকাশের স্বাধীনতা মানে জিয়াউর রহমান কথা বলার স্বাধীনতা মানেই জিয়াউর রহমান। শান্তিতে ঘুমানো মানেই জিয়াউর রহমান। আইনের শাসন মানেই জিয়াউর রহমান।

 

 

জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের আহ্বায়ক প্রিন্সিপাল মাওলানা শাহ্ মো: নেছারুল হক এর সঞ্চালনায় এসময় ওলামা দলের সদস্য সচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা নজরুল ইসলাম তালুকদার, যুগ্ম-আহ্বায়ক এ্যাডভোকেট কাজী আবুল হোসেন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সদস্য সচিব মাওলানা রফিকুল ইসলাম, তাঁতী দলের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, বিএনপির সহদফতর সম্পাদক বেলাল আহমেদ, নির্বাহী সদস্য আবেদ রাজা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

রাজনীতি-এর সর্বশেষ খবর