আজ রবিবার 4:34 pm09 August 2020    ২৫ শ্রাবণ ১৪২৭    19 ذو الحجة 1441
For bangla
Total Bangla Logo

রাজশাহীতে ১২ জন অ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী

আলজাজিরাবাংলা.কম

প্রকাশিত : ০১:২৪ পিএম, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৬ রবিবার | আপডেট: ০৫:২৭ পিএম, ১১ অক্টোবর ২০১৬ মঙ্গলবার

রাজশাহীতে ১২ জন অ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত

রাজশাহীতে ১২ জন অ্যানথ্রাক্সে আক্রান্ত

রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলায় অ্যানথ্রাক্স রোগে ১২ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এতে ওই উপজেলার স্থানীয়দের মধ্যে অ্যানথ্রাক্স আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

জানা যায়, ১০ সেপ্টেম্বর উপজেলার পাকড়ী ইউনিয়নের মাকরান্দা গ্রামের শফিকুল ইসলাম একটি অসুস্থ মহিষ জবাই করে গোশত বিক্রি করে। গোশত খেয়ে গ্রামের ১২ জন অ্যানথ্রাক্স রোগে আক্রান্ত হন।

আক্রান্তরা হলেন, গোদাগাড়ী উপজেলার মাকরান্দা গ্রামের মিজানুর রহমান (৪৫), ইমরান হোসেন (৫০), রুহুল আমিন (৫০), রবিউল ইসলাম (৩৫), রফিকুল ইসলাম (৩৫), শফিকুল (৩০), মফিজুল (২৫), ভুষণা গ্রামের উত্তম কুমার (৪০), বাউটিয়া গ্রামের হোসেন আলী (৪০) , টুটুল (৪০), কামারুজ্জান ও এনামুল হক।

আক্রান্ত ব্যক্তিরা জানান, তাদের শরীরের বিভিন্ন অংশে ছোট ও বড় ক্ষত এবং ঘা দেখা দেয়। শরীরে জ্বর ও ব্যাথা নিয়ে তারা প্রাথমিকভাবে গ্রাম্য চিকিৎসদের কাছে চিকিৎসা নেন। অবস্থার অবনতি হলে তারা গোদাগাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসা নেন। আবার কেউ কেউ বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। এখনও তারা সুস্থ হয়ে উঠেনি।

এ ব্যাপারে শনিবার গোদাগাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য ও প্রাণী সম্পদ বিভাগের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে পৌছে রোগাক্রান্ত গরু, মহিষ, ছাগল ও ভেড়ার মাংস না খাওয়ার জন্য স্থানীয়দের সতর্ক করেন।

গোদাগাড়ী প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডা. সাইফুল ইসলাম বলেন, ‘অ্যানথ্রাক্স রোগে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। এলাকার প্রত্যেক গবাদী পশুকে অ্যানথ্রাক্স প্রতিরোধে টিকা দেওয়া হচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন,‘শফিকুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তি ভারত থেকে একটি মহিষ এনে বাড়িতে রাখে। মহিষটির জ্বর ও কাপনি শুরু হলে সে জবাই করে দেয়। যারা মহিষ জবাইয়ের সঙ্গে জড়িত ছিল তাদের দেহের বিভিন্ন অংশে ক্ষত ও ঘা দেখা দিয়েছে।’

গোদাগাড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) জাহিদ নেওয়াজ বলেন,‘উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আক্রান্তদের ভর্তি করে বিনামূল্যে চিকিৎসা দেওয়া হবে। এলাকায় অ্যানথ্রাক্স রোগ সম্পর্কে সচেতনতামূলক কর্মসূচি বাস্তবায়ন চলছে।’

দেশ-এর সর্বশেষ খবর