আজ বৃহস্পতিবার 8:03 am09 July 2020    ২৪ আষাঢ় ১৪২৭    18 ذو القعدة 1441
For bangla
Total Bangla Logo

কষ্ট কমাতে হাজিদের দাবি

ঢাকা-মদিনা সরাসরি ফ্লাইট চাই

তাকরিম হাসান

আলজাজিরাবাংলা.কম

প্রকাশিত : ১০:৫৬ পিএম, ১২ অক্টোবর ২০১৬ বুধবার

ঢাকা-মদিনা সরাসরি ফ্লাইট চাই

ঢাকা-মদিনা সরাসরি ফ্লাইট চাই

এ বছর পবিত্র হজ পালন শেষে এখন পর্যন্ত ৮০ হাজারের কিছু বেশি হজযাত্রী দেশে ফিরেছেন। আগামী ১৭ অক্টোবর (সোমবার) হাজিদের ফিরতি ফ্লাইট শেষ হবে। চলতি বছর ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় সরকারি ও বেসরকারি হজযাত্রীরা অন্যবারের চেয়ে তুলনামূলক সন্তুষ্ট। হজ থেকে ফিরে অনেক হাজি মদিনা থেকে ঢাকা সরাসরি ফ্লাইট চালুর দাবি জানিয়েছেন।

এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে হাজিরা বলেন, বর্তমান ব্যবস্থায় হজযাত্রীদের জেদ্দা বিমানবন্দরে নেমে তারপর মদিনা যেতে হচ্ছে। ফলে কমপক্ষে ছয় ঘণ্টা সময়, টাকা ও শারীরিক ধকল যাচ্ছে। আবার যারা জেদ্দা হয়ে মক্কায় যাচ্ছেন তারা হজ করে মদিনা হয়ে সরাসরি দেশে ফিরতে পারলে কষ্ট কম হতো। সরাসরি ফ্লাইট না থাকায় হাজিদের বিশেষ করে বয়স্ক হজযাত্রীদের শরীরের উপর বড় ধকল পড়ছে।

এ প্রসঙ্গে ধর্ম মন্ত্রণালয়েরর সিনিয়র তথ্য অফিসার ও বর্তমানে জেদ্দা বিমানবন্দরে মৌসুমি সহকারী হজ অফিসার হিসেবে দায়িত্বরত মোহাম্মদ আনোয়ার হোসাইন বলেন, হাজিদের সুবিধার্থে মদিনা থেকে সরাসরি ফিরতি হজ ফ্লাইট চালুর দাবি যৌক্তিক। প্রতিবেশী দেশ ইনডিয়া ও পাকিস্তান ইতোমধ্যেই তাদের কিছু ফ্লাইট মদিনা থেকে চালু করেছে। মদিনা থেকে ফ্লাইট চালু করা এখন হজ ব্যবস্থাপনার বড় চ্যালেঞ্জ।


হাজি সোহেল রহমান জানান, তিনি তার বৃদ্ধ বাবা-মাকে নিয়ে এবার হজে যান। জেদ্দা বিমানবন্দরে নেমে ছয় ঘণ্টা গাড়িতে মদিনায় যান। পরে মক্কায় হজ শেষে জেদ্দা হয়ে দেশে ফেরেন। সরাসরি ফ্লাইটটি মদিনায় গেলে ছয় ঘণ্টা কষ্ট কমতো।

ধর্ম মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছর সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় মোট ১ লাখ ১ হাজার ৮২৯ জন হজ করেছেন। মঙ্গলবার (১১ অক্টোবর) পর্যন্ত হজ পালন শেষে দেশে ফিরেছেন ৮০ হাজার ৪২২ জন হাজি। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ১০৫টি ও সৌদিয়া এয়ারলাইন্সের ১২৩টিসহ মোট ২২৮টি ফিরতি ফ্লাইটে তারা দেশে ফিরেছেন।

চলতি বছর হজে গিয়ে ইনতেকাল করেছেন মোট ৮২ জন হজযাত্রী। তাদের মধ্যে ৬২ জন পুরুষ ও ২০ জন মহিলা। মোট হাজির মধ্যে মক্কায় ৬২ জন, মদিনায় ১৩ জন, জেদ্দায় ২ জন এবং মিনায় ৫ জন মারা যান।

গত ৪ আগস্ট চলতি বছরে প্রথম হজ ফ্লাইট সৌদিআরব যায় এবং ৬ সেপ্টেম্বর ছিল বাংলাদেশ থেকে সৌদিআরব যাত্রার শেষ ফ্লাইট। হজ শেষে গত ১৭ সেপ্টেম্বর (শনিবার) থেকে চালু হয় ফিরতি হজ ফ্লাইট।

 

http://www.aljazeerabangla.com/হাকা

 

ধর্ম-এর সর্বশেষ খবর